অ্যাকসেস এগ্রিকালচার পুরস্কার ২০১৫

অক্টোবর ২০১৬

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার ২০১৬ সালে ‘ইভকম ক্ল্যারিয়ন’ অ্যাওয়ার্ডের স্বর্ণপদক লাভ করে

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’ ২০১৬ সালের ৭ই অক্টোবর যুক্তরাজ্যের লন্ডনে অনুষ্ঠিত একটি আন্তর্জাতিক অনুষ্ঠানে ‘ইভকম ক্ল্যারিয়ন’ অ্যাওয়ার্ডের ‘ইনোভেশন’ বিভাগে স্বর্ণপদক লাভ করে। এটি ‘শিখন ও শিক্ষা’ বিভাগে অত্যন্ত আকর্ষণীয় একটি পদক হিসেবে স্বীকৃত।   

ইভকম ক্ল্যারিয়ন অ্যাওয়ার্ড’ হলো একটি শীর্ষ স্থানীয় ‘ইভেন্ট অ্যান্ড কমিউনিকেশন’ পুরস্কার যা পরিবেশ, বৈচিত্র্য, মান, কমিউনিটি, দাতব্য উদ্যোগ, শিক্ষা, নীতিশাস্ত্র, স্বাস্থ্য ও কল্যাণ সম্পর্কিত বিষয়গুলোসহ করপোরেট সামাজিক দায়বদ্ধতা (সিএসআর) এবং টেকসইকরণের কর্মক্ষমতাকে স্বীকৃতি দেয়। 

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার স্থানীয় ভাষায় ‘কৃষক থেকে কৃষক’ ভিডিওগুলো প্রচার করে, সংস্থাটি এমন কাল্পনিক উপায়ে অন্যদের থেকে আলাদা করতে পেরেছিল যে, ভিডিওগুলোর প্রকৃত মর্ম সরাসরি অথবা সম্প্রসারণকর্মীদের মাধ্যমে অভীষ্ঠ জনগোষ্ঠীর মাঝে পৌছাতে পারেছিল। এর ভিডিও ফ্ল্যাটফর্ম বিশ^জুড়ে কৃষকদের পরস্পরের সাথে জ্ঞান ও দক্ষতা শেয়ার করে নিতে সক্ষম করার জন্য স্থানীয় ভাষায় কৃষি-প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলোকে একটি অমূল্য সম্পদ হিসেবে সরবরাহ করে।  

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার ২০১২ সালে প্রতিষ্ঠা লাভ করে এবং একটি আন্তর্জাতিক অলাভজনক সংস্থা হিসেবে বেলজিয়ামে (এআইএসবিএল) নিবন্ধিত হয়। এটি বিশ্বব্যাপী একটি পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থা যা কৃষক এবং গ্রামীণ ব্যবসায়ীদের  মধ্যে দক্ষিণ-দক্ষিণ শিক্ষাকে সহযোগিতা করার জন্য আন্তর্জাতিক ও স্থানীয় ভাষায় কৃষিবাস্তুবিদ্যা ও শিল্পোদ্যোগ বিষয়ক মানসম্পন্ন কৃষি প্রশিক্ষণ ভিডিও নির্মাণ করে।   

আজ ৮০টিরও বেশি ভাষায় ২০০টিরও অধিক প্রচার-মানসম্পন্ন কৃষি-প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো ‘অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’-এর ‘ওপেন অ্যাকসেস ভিডিও প্ল্যাটফর্মে’ হোস্ট করা হয়েছে : https://www.accessagriculture.org/

অক্টোবর ২০১৮

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার ২০১৮ সালে ‘আইস্ট্যান্ডআউট’ বিভাগে D4D পুরস্কার  অর্জন করে

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’ ২০১৮ সালের ৪ঠা অক্টোবর বেলজিয়ামের ব্রাসেলস-এ ‘রয়েল মিউজিয়াম ফর সেন্ট্রাল আফ্রিকা’ আয়োজিত ‘ইনোভেশন ফেয়ার অ্যান্ড অ্যাওয়ার্ডস’ অনুষ্ঠানে ‘আইস্ট্যান্ডআউট’ বিভাগে ডিজিটাল ফর ডেভেলপমেন্ট (D4D) পুরস্কার অর্জন করে। পুরষ্কার প্রদান অনুষ্ঠানে উপ-প্রধানমন্ত্রী, অর্থ এবং উন্নয়ন সহযোগিতা মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী জনাব আলেক্সান্ডার ডি ক্রো সভাপতিত্ব করেন।    

ডিজিটাল ফর ডেভেলপমেন্ট পুরস্কার হলো ‘রয়েল মিউজিয়াম ফর সেন্ট্রাল আফ্রিকা’ (আরএমসিএ)-এর একটি দ্বিবার্ষিক উদ্যোগ যা ডাইরেক্টরেট-জেনারেল ফর ডেভেলপমেন্ট কো-অপারেশন অ্যান্ড হিউমেনিটেরিয়ান এইড (ডিজিডি)-এর সহযোগিতায় সম্পন্ন হয়। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) অর্জনের লক্ষ্যে ডিজিটাইজেশন এবং নতুন প্রযুক্তি ব্যবহারের ক্ষেত্রে অসাধারণ উদ্যোগী ভূমিকার জন্য এই পুরস্কার প্রদান করা হয়। 

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’, বিশ্বসেরা একটি সংস্থা যারা দক্ষিণজুড়ে আঞ্চলিক ভাষায় মানসম্পন্ন কৃষি-প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো প্রচার করে। সংস্থাটির কার্যকর উদ্ভাবনী পদ্ধতি ও অসাধারণ প্রচার দক্ষতার জন্য জুরি বোর্ড তাদের অভিনন্দিত করে। 

জুরি বোর্ড লক্ষ্য করে যে, ‘অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’-এর অনলাইন ভিডিও প্ল্যাটফর্মের প্রতিবেদনগুলো ‘আইস্ট্যান্ডআউট’ বিভাগে সেরা। “অ্যাকসেস এগ্রিকালচার-এর প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো স্থানীয় ভাষায় ব্যবহার করে দক্ষিণের কৃষকেরা একে অপরের কাছ থেকে টেকসই কৃষি-প্রযুক্তিগুলো শিখতে পারে।”

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’-এর উদ্ভাবনী ডিজিটাল কৌশল, প্রযুক্তি এবং অংশীদারিত্ব কাজে লাগিয়ে স্থানীয় ভাষায় মানসম্পন্ন প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো বিশ্বব্যাপী গ্রহণযোগ্য করে তুলেছে এবং এর মাধ্যমে লাখ লাখ কৃষকের জীবনমান বদলে দিতে সক্ষম হয়েছে।

আজ ৮০টিরও বেশি ভাষায় ২০০টিরও অধিক প্রচার-মানসম্পন্ন কৃষি প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো ‘অ্যাকসেস এগ্রিকালচার’-এর ‘ওপেন অ্যাকসেস ভিডিও প্ল্যাটফর্মে’ হোস্ট করা হয়েছে : https://www.accessagriculture.org/

অ্যাকসেস এগ্রিকালচার তার ‘যুব উদ্যোক্তা চ্যালেঞ্জ ফান্ড’-এ পুরস্কার হিসেবে ১০ হাজার ইউরো বিনিয়োগ করেছে, দক্ষিণের স্থানীয় উদ্যোক্তাদের সহযোগিতা করার জন্য তারা তাদের কৃষি-প্রশিক্ষণ ভিডিওগুলো একেবারে প্রান্তসীমায় বসবাসকারীদের মাঝেও বিতরণ করেছে যাতে স্থানীয়রা একটি ব্যবসায় শুরু করতে পারে। 


অ্যাকসেস এগ্রিকালচার সম্মেলনে বিজয়ী

অ্যাকসেস এগ্রিকালচারের সম্মেলন চলাকালীন একটি নৈশভোজনের অনুষ্ঠানে ২০১৫ সালের বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হয়েছিল।

ভিডিও প্রোডাক্শন পার্টনার

পুরস্কার

চুড়ান্ত প্রতিযোগীরা:

সেন্টার সংঘাই, বেনিন

এগার্টন বিশ্ববিদ্যালয়, কেনিয়া       

এনএএসএফএএম মালাবি

বিজয়ী:

সেন্টার সংঘাই, বেনিন

ভিডিওটি দেখার জন্য এখানে

ক্লিক করুন

ইনোভেশন পুরস্কার

বন পেসান, বেনিন

ভিডিওটি দেখার জন্য এখানে

ক্লিক করুন

মিডিয়া হাউস এবং মিডিয়া

সহযোগী পুরস্কার

চুড়ান্ত প্রতিযোগীরা:

বায়োভিশন আফ্রিকা ট্রাস্ট, কেনিয়া

ফার্মার্স মিডিয়া, উগাণ্ডা

বিজয়ী:

বায়োভিশন আফ্রিকা ট্রাস্ট, কেনিয়া    

ভিডিওটি দেখার জন্য এখানে

ক্লিক করুন

অসাধারণ  কৃতিত্ব পুরস্কার

জেন নালুঙ্গা, উগাণ্ডা

ভিডিওটি দেখার জন্য এখানে

ক্লিক করুন

ভিডিও প্রচার পুরস্কার     

চুড়ান্ত প্রতিযোগীরা:

বন পেসান, বেনিন

সিআইএটি, ভিয়েতনাম

সিআইএমএমওয়াইটি এবং

এএএস, বাংলাদেশ

কানট্রিওয়াইস, ঘানা

জিএডিসি, উগাণ্ডা

বিজয়ী:

বৃহত্‍ সংস্থা:

-সিআইএমএমওয়াইটি এবং

এএএস, বাংলাদেশ

ছোট সংস্থা:

-কানট্রিওয়াইস, ঘানা

ভিডিওটি দেখার জন্য এখানে

ক্লিক করুন

Designed & Built by Adaptive - The Drupal Specialists